Contact us to get featured in Entrepreneurs Magazine TSM | Call: 01684722205

এতো সব ভেজালের ভীরে একটু খানি খাঁটির স্বাদ দিতেই আমার উদ্যোগ Tastebd এর জন্ম।Salma Neha

বাহারী রং বেরং এর ভেজাল মিষ্টির ভীরে  হারাতে বসেছে অনেক ঐতিহ্যবাহী মিষ্টি এবং মিষ্টি জাতীয় খাবার।এতো সব ভেজালের ভীরে একটু খানি খাঁটির স্বাদ দিতেই আমার উদ্যোগ Tastebd এর জন্ম। আমি সালমা নেহা। কিশোরগঞ্জ জেলার কটিয়াদি তে জন্ম এবং সেখানেই বেড়ে উঠা।ছয় ভাই বোনের সবার ছোট।মাধ্যমিকের পর গ্রাম ছেড়ে শহরে পা রাখা,সাথে পরিবারের এক বুক স্বপ্ন নিয়ে যে মেয়ে ভালো কিছু করবে।পড়া শোনা শেষে বিসিএস, সরকারী চাকুরী,ব্যাংকার নানান চিন্তা পরিবারের সবার থাকলেও আমার মন সেদিকে টানতো না কিছু তেই।সময়ের নিয়মে বাঁধা জীবন বড্ড অপছন্দ আমার।

ঢাকার তেজগাঁও কলেজ থেকে ২০১৬ সালে বিবিএ কমপ্লিট করে বিয়ে পর স্বামীর সহযোগিতায় নাম লেখায় উদ্যোক্তার খাতায়। সাথে পরিবারের পিড়াপিড়িতে একটা প্রাইভেট কোম্পানীতে জয়েন করি।যেহেতু আমার উদ্যোগ ছিলো দেশীয় ক্লথিং আইটেম নিয়ে তাই প্রায়ই অফিস শেষ করে স্বামী-স্ত্রী দু’জনে ছুটে বেড়িয়েছি বিভিন্ন সোর্সিং পয়েন্ট আর মার্কেটে।কিন্তু ২০১৯ এ এসে শারীরিক অসুস্থতা আর মাতৃত্বের দোহাই দিয়ে সেই উদ্যোগের ইতি টানতে হয়েছিল।চরম ভাবে হতাশা শুরু হলো তখনি।কারন স্বপ্নের জায়গা টা স্যাক্রিফাইস করতে হয়েছে। ঠিক তার কিছু দিনের মধ্যেই অক্টোবর মাসে দেখা মিলে women and e-commerce Forum (WE) গ্রুপের।সেখানে ই-ক্যাব এর  প্রতিষ্ঠাতা রাজিব আহমেদ স্যারের নির্দেশনা অনুযায়ী পুরোদমে সময় দেওয়া শুরু করি গ্রুপে।উই গ্রুপে একটিভ থেকে নিজের পারসোনাল ব্র্যান্ডিং তৈরীরও চেষ্টা করি।কারন এফ কমার্স বা ই-কমার্স বিজনেস মানেই বিশ্বস্ততার জায়গা।আমরা যাকে চিনি তার কাছেই কিনি এ নীতিতে সবাই বিশ্বাসী।তাই কিছু দিন সময় দিয়ে জানুয়ারি তে এসে স্বামীর সহযোগিতায় আবার নতুন করে শুরু করি চাঁপাইনবাবগঞ্জের ১৫০ বছরের পুরনো  ঐতিহ্যবাহী আদি চমচম নিয়ে পথ চলা।শশুর বাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জ হওয়াই সকল কিছু ছিলো আমার হাতের নাগালে তাই সুযোগ টা কাজে লাগানোর চেষ্টা করি। সাথে চাঁপাইনবাবগঞ্জের অন্যান্য সকল মিষ্টি যেমন- ইলিশপেটি, প্যাড়ামিষ্টি, রসকদম, কাটারীভোগ এবং মিষ্টি জাতীয় খাবার।ক্রেতাদের অনুরোধ আর আবদার মিটাতে আম,লিচুও যুক্ত করি সিজনাল হিসেবে।আলহামদুলিল্লাহ এক্ষেত্রে ও সাড়া পেয়েছি আশাতিরিক্ত।

আমার বিজনেস পুরোটাই ছিলো তখন উই কেন্দ্রিক, এখনো অনেকটা তাই আছে।পারসোনাল ব্র্যান্ডিং এর ফলে শুরুতেই আলহামদুলিল্লাহ ব্যাপক সাড়া পেয়েছি। জানুয়ারি শেষ সপ্তাহ থেকে মার্চ মাস অর্থাৎ লকডাউন এর আগে সেল ছিলো ২৬৮০০০ হাজার টাকা।তবে এ পর্যায়ে আসতে চাকুরী আর বাচ্চা সাথে সংসার মেইনটেইন এসব কিছু  নিয়ে অনেক স্ট্রাগল করতে হয়েছে। সময় দিয়ে ধৈর্য ধরে আমার কাজ, আমার প্ল্যানিং নিয়ে পরিশ্রম করতে হয়েছে। যেহেতু ফুড আইটেম তাই ঢাকার বাইরে থেকে এনে সঠিক সময়ে ফ্রেশ মিষ্টি ডেলিভারি করা এবং ঢাকার বাইরে পৌঁছানো টাই ছিলো আমার আসল চ্যালেন্জ।তবে কাজে নেমে উই তে রাজীব আহমেদ স্যারের নির্দেশনা মতো পথ চলে বিজনেস নিয়ে আমার যে অভিজ্ঞতা হয়েছে এটাই এখন আমার জীবনের মূল অ্যাসেট বলে আমি মনে করি।বর্তমানে চাঁপাইনবাবগঞ্জের পন্যের সাথে যোগ করেছি কিশোরগঞ্জের জেলার ব্র্যান্ডিং পন্য পনির নিয়ে।মাসিক সেল প্রায় ১লাখ + এবং ৯ মাসে আমার টোটাল সেল ১৫লাখ+ টাকা।সাম্প্রতিক নিজের ব্যবসায়ে সময় দেওয়ার জন্য চাকুরী ছেড়ে এখন পুরোদস্তর উদ্যোক্তা আলহামদুলিল্লাহ। আমি স্বপ্ন দেখি আমার মাধ্যমে চাঁপাইনবাবগঞ্জ এবং কিশোরগঞ্জ এর পন্য কে সকল জেলার মানুষজন চিনবে।এবং দেশের প্রতিটি জেলায় এই দুই জেলার পন্য যাবে আমার মাধ্যমে। কিশোরগঞ্জ এবং চাঁপাইনবাবগঞ্জ বলতে মানুষ সালমা নেহা এবং Tastebd কে স্মরন করবে।তাছাড়া আমার সিগন্যাচার পন্য আদি চমচম এবং কিশোরগঞ্জের পনির দুটি পন্যই প্রচারনার অভাবে  হারিয়ে যাওয়ার পথে।তাই আমার মাধ্যমে মিষ্টির কারিগর আর পনির এর কারিগরদের  জীবনে একটু হলেও সুদিন ফিরে আসবে এমনটাই স্বপ্ন দেখি।

Entrepreneurs magazine কে অসংখ্য ধন্যবাদ এবং কৃতজ্ঞতা আমাদের মতো উদ্যোক্তাদের কথা তুলে ধরার জন্য।এভাবেই সহযোগিতা আর সাপোর্ট পেলে নারী উদ্যোক্তারা আরো অনেক বেশি এগিয়ে যাওয়ার সাহস পাবে।

S.Z.PRINCE

facebookhttps://web.facebook.com/S.Z.PRINCE

WhatsApp no. 01684722205

Magazine page: https://web.facebook.com/TSMEntrepreneursMagazine